এবার মুস্তাফিজের প্রশংসা করলেন ভারতের সাবেক ক্রিকেটার

এবার মুস্তাফিজের প্রশংসা করলেন ভারতের সাবেক ক্রিকেটার

অনলাইন ডেস্ক

শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে এবারের বিশ্বকাপ মিশন শুরু করেছে বাংলাদেশ। দ্বিতীয় ম্যাচে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে জয়ের খুব কাছে গিয়েও হারতে হয়েছে। তবে বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে তৃতীয় ম্যাচে আবার ঘুরে দাঁড়িয়েছে টাইগাররা। তাতে ৩ ম্যাচে ৪ পয়েন্ট নিয়ে সুপার এইটের পথ সুগম করেছে শান্ত বাহিনী।

 

পরের ম্যাচগুলোতে অনাকাঙ্ক্ষিত কিছু না ঘটলে গ্রুপ ‘ডি’ থেকে দক্ষিণ আফ্রিকার সঙ্গী হয়ে পরের রাউন্ড খেলবে টাইগাররা। যেখানে প্রতিপক্ষ হিসেবে ভারত, অস্ট্রেলিয়া ও আফগানিস্তানকে পেতে পারে শান্তরা।

গতকাল নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে ২৫ রানের জয় পেয়েছে বাংলাদেশ দল। এই ম্যাচেও বল হাতে দুর্দান্ত ছিলেন মুস্তাফিজুর রহমান।

৪ ওভার বল করে নিয়েছেন ১ উইকেট। তবে ছিলেন বেশ মিতব্যয়ী। ৪ ওভারে রান দিয়েছেন মোটে ১২। এমন বোলিংয়ের পর মুস্তাফিজ বন্দনায় মেতেছেন ভারতের সাবেক ক্রিকেটার পার্থিব প্যাটেল।

ক্রিকবাজের শোতে মুস্তাফিজকে নিয়ে পার্থিব বলেন, ‘সে দারুণ বোলিং করেছে, আপনি তার বোলিংয়ে অনেক উন্নতির ছাপ দেখতে পারবেন। আমার মনে হয় সে যখন ২০১৬-১৭ সালে খেলেছে, তখন তার দ্রুতগতির ডেলিভারিগুলো ছিল ঘণ্টায় ১৪০-১৪৫ এবং সে যখন স্লোয়ার মারতো সেগুলো ১১০ কিংবা ১১৫ হতো, গতির দিক থেকে অনেক পার্থক্য ছিল। ’

‘পরের তিন বছরে তার দ্রুতগতির ডেলিভারিগুলো ঘণ্টায় ১৩০-১৩৫ কিলোমিটার এবং স্লোয়ার সবসময় ১১৫-১২০ ছিল। এজন্য গতির বৈচিত্র্য দিয়ে খুব বেশি ব্যাটারদের বোকা বানাতে পারতো না। এখন তার অভিজ্ঞতা এবং চেন্নাইয়ের হয়ে খেলে উইকেটকে ভালোভাবে ব্যবহার করছে, অ্যাঙ্গেলটা খুব ভালোভাবে ব্যবহার করছে, সেই সঙ্গে সে পিচও বুঝতে শিখে গেছে। সে স্মার্ট বোলার হয়ে গেছে। ’-যোগ করেন তিনি।

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষেও দারুণ বোলিং করেছিলেন মুস্তাফিজ। সেই ম্যাচের পারফরম্যান্স নিয়ে পার্থিব বলেন, ‘সেটার বড় উদাহরণ হচ্ছে সে যেভাবে নিউ ইয়র্কে বোলিং করেছে। সে একমাত্র বোলার যে কিনা ইয়র্কার মারার চেষ্টা করেনি। আমরা হারিস রউফ, আর্শদীপসহ আরও অনেক বোলারকে ইয়র্কার মারার চেষ্টা করতে দেখেছি। কিন্তু সে ইয়র্কার করেনি। সাউথ আফ্রিকার বিপক্ষে ১৮তম ওভারে সে খুব সম্ভবত ১ রান দিয়েছিল। ’

‘চেন্নাইয়ের হয়ে খেলা এবং নিজের লিমিটেশন সম্পর্কে বুঝতে পারাটা ‍গুরুত্বপূর্ণ। সে জানে তার ফিটনেস কখনই তাকে ১৪৫ কিলোমিটার গতিতে বোলিং করতে এলাউ করবে না। যে কারণে সে আবারও তার সেরা পারফরম্যান্সে ফিরতে পেরেছে। ’-যোগ করেন তিনি।

news24bd.tv/কেআই

পাঠকপ্রিয়