আজ বছরের সবচেয়ে ছোট রাত

আজ বছরের সবচেয়ে ছোট রাত

অনলাইন ডেস্ক

আজকের দিনটি অন্যান্য দিনের চেয়ে আলাদা। কারণ আজকের রাতটি হবে বছরের স্বল্পতম রাত। শুক্রবার (২১ জুন) ছিলো সবচেয়ে বড় দিন। এটি হচ্ছে উত্তর গোলার্ধের চিত্র।

যদিও দক্ষিণ গোলার্ধে আজ সবচেয়ে ছোট দিন ও বড় রাত।

আবহাওয়া অফিসের তথ্য বলছে, আজ সূর্যোদয় হয়েছে ৫টা ১২ মিনিটে আর সূর্যাস্ত গেছে ৬টা ৪৯ মিনিটে। সে হিসাবে শুক্রবার (২১ জুন) দিন ছিল ১৩ ঘণ্টা ৩৭ মিনিট। আর দিবাগত রাত গিয়ে সূর্যাস্ত যাবে ৫ টা ১২ মিনিটে।

সেই হিসেবে আজ রাতের দীর্ঘ হবে ১০ ঘণ্টা ২৩ মিনিট।

এ বিষয়ে আবহাওয়াবিদ মো. শাহিনুল ইসলাম জানিয়েছেন, পৃথিবীই পুরোপুরি গোলাকৃতির নয়। দুই মেরুর কাছে কিছুটা চাপা। এককথায় পৃথিবী চ্যাপ্টা আকৃতির। যখন একটি গ্রহ সূর্যকে প্রদক্ষিণ করে, তখন উপবৃত্তাকার কক্ষপথের একটি কেন্দ্র হল সূর্য। তখন বিভিন্ন স্থানে সূর্যের আলোর তারতম্য হয়। এর ফলে এক এক গোলার্ধে দিন ও রাতের তারতম্য হয়। যেমন- সেপ্টেম্বর মাস থেকে দিনের দৈর্ঘ্য রাতের চেয়ে ছোট হওয়া শুরু হয়।

তিনি আরও বলেন, ২৩ সেপ্টেম্বর এবং ২১ মার্চ তারিখে দিন-রাত্রি সমান হয়। কেননা, এ সময় দিনে সূর্য বিষুবরেখার উপর লম্বভাবে কিরণ দেয়। পক্ষান্তরে ২১ জুন উত্তর গোলার্ধে দিন বড়, রাত ছোট হয়। আর ২২ ডিসেম্বর দক্ষিণ গোলার্ধে দিন বড়, রাত ছোট। একই সময়ে উত্তর গোলার্ধে হয় দীর্ঘতম রাত আর ক্ষুদ্রতম দিন। আর এ সময় শীতকালে সূর্য তীর্যকভাবে আলো দেয়।

এদিকে ২১ জুনকে অনেকেই বলেন কর্কটক্রান্তি দিবস। কেউবা অয়ন দিবস বলে থাকেন। ২১ জুন মধ্যদুপুরে মানুষ নিজের ছায়াও দেখতে পায় না। সূর্য যখন ঠিক কর্কটক্রান্তি রেখার ওপর থাকে, তখন ছায়া কিছু সময়ের জন্য অদৃশ্য হয়ে যায়।

এছাড়া, বিশ্বের বিভিন্ন দেশে এই দিনে পালিত হয় বিভিন্ন আচার অনুষ্ঠান। প্রাচীনকালে ইউরোপের মানুষ এই দিনটি থেকে তাদের বছর শুরু করত বলে জানা যায়।

প্রসঙ্গত, উত্তর গোলার্ধ হলো নিরক্ষরেখার উত্তর দিকে অবস্থিত পৃথিবীর অর্ধাংশ। পৃথিবীর অক্ষীয় ঢালের কারণে উত্তর গোলার্ধে শীতকাল সূর্যের দক্ষিণায়ন (সাধারণত ২১ ডিসেম্বর) থেকে মার্চের মহাবিষুব (সাধারণত ২০ মার্চ) পর্যন্ত স্থায়ী হয়। আর গ্রীষ্মকাল সূর্যের উত্তরায়ণ (সাধারণত ২১ জুন) হতে জলবিষুব (সাধারণত ২৩ সেপ্টেম্বর) পর্যন্ত স্থায়ী হয়।

দক্ষিণ গোলার্ধ হলো নিরক্ষরেখার দক্ষিণ দিকে অবস্থিত পৃথিবীর অর্ধাংশ। দক্ষিণ গোলার্ধে পৃথিবীর ৫টি মহাদেশ সম্পূর্ণ বা আংশিকভাবে অবস্থিত। অ্যান্টার্কটিকা, অস্ট্রেলিয়া, দক্ষিণ আমেরিকার নয়-দশমাংশ, আফ্রিকার দক্ষিণভাগের একাংশ এবং এশিয়ার কিছু দক্ষিণাঞ্চলীয় দ্বীপ, চারটি মহাসাগর (ভারত, দক্ষিণ আটলান্টিক, দক্ষিণ মহাসাগর, এবং দক্ষিণ প্রশান্ত) এবং ওশেনিয়ার অধিকাংশ। এশিয়া মহাদেশের কিছু মহাদেশীয় দ্বীপও দক্ষিণ গোলার্ধের অন্তর্ভুক্ত।

দক্ষিণ গোলার্ধে ডিসেম্বর হতে মার্চ মাস পর্যন্ত গ্রীষ্মকাল এবং জুন হতে সেপ্টেম্বর মাস পর্যন্ত শীতকাল বিরাজ করে পৃথিবীর অক্ষীয় ঢালের কারণে। সেজন্য সেপ্টেম্বরের ২২ বা ২৩ তারিখে এখানে মহাবিষুব এবং মার্চের ২০ বা ২১ তারিখে শারদীয় বিষুব হয়।

news24bd.tv/SC    

পাঠকপ্রিয়